ভারত থেকে কয়লা আমদানি শুরু

0
1

দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর আবারো হিলি স্থলবন্দর দিয়ে ভারত থেকে কয়লা আমদানি শুরু হয়েছে। চলতি মৌসুমে ইটভাটাগুলোয় পণ্যটির চাহিদা বেড়ে যাওয়ায় স্থল বন্দরটি দিয়ে কয়লা আমদানি বেড়েছে।বাংলাহিলি সিঅ্যান্ডএফ এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশনের কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, অনেক দিন কয়লা আমদানি বন্ধ থাকার পর আবারো ১৯ নভেম্বর ভারত থেকে পণ্যটির আমদানি শুরু হয়েছে। প্রতিদিন গড়ে হিলি স্থলবন্দর দিয়ে ভারত থেকে ৫-১০ ট্রাক কয়লা আমদানি হচ্ছে। ১৯ নভেম্বর থেকে ৮ ডিসেম্বর পর্যন্ত পণ্যটির মোট আমদানির পরিমাণ দাঁড়ায় ৮১ ট্রাকে ২ হাজার ৬৩ টন। বর্তমানে ভারত থেকে আমদানি প্রতি টন কয়লা প্রকারভেদে         ১৬-১৮ হাজার টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

হিলি স্থলবন্দরের কয়লা আমদানিকারক মেসার্স খান ট্রেডার্সের স্বত্বাধিকারী হারুন-উর-রশীদ হারুন জানান, ভারত থেকে যেসব কয়লা আমদানি করা হচ্ছে তা আশপাশ জেলার ইটভাটাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানের ক্রেতারা কিনে থাকেন।হিলি স্থলবন্দরে কয়লা কিনতে আসা ফুলবাড়ীর ইমরান হোসেন জানান, ইটভাটাগুলোয় বর্তমানে চলছে আগুন দেয়ার কার্যক্রম। মৌসুমের শুরুতে ইটভাটায় আগুন দিতে প্রায় ১০০ টনের মতো কয়লার প্রয়োজন হয়। পরে তা কমে ৯০ থেকে ৮০ টনে নেমে আসে। বড়পুকুরিয়া কয়লা খনিতে উৎপাদন বন্ধ থাকায় এতদিন সরবরাহও বন্ধ ছিল। তবে আজ (গতকাল) তিনি দুই ট্রাক কয়লা ক্রয় করেছেন। প্রতি টন কয়লায় দাম দিতে হয়েছে ১৭ হাজার টাকা। গত মৌসুমের এ সময়ে খনি থেকে একই পরিমাণ পণ্য ১২ হাজার ৭০০ টাকায় ক্রয় করেছিলেন। তবে মৌসুম শেষে এর দাম কমে ৯ হাজার ২০০ টাকায় নামে। কয়লার দাম বেড়ে যাওয়ায় ইটের দামও বাড়বে বলে তিনি জানান। তিনি আরো জানান, ১০ ডিসেম্বর থেকে বড়পুকুরিয়ায় উৎপাদিত কয়লা সরবরাহ শুরু হবে। এ কার্যক্রম শুরু হলে দাম কিছুটা কমতে পারে।হিলি শুল্ক স্টেশনের সহকারী কমিশনার মহিবুর রহমান ভুঞা জানান, অনেক দিন বন্ধ থাকার পর আবারো কয়লা আমদানি শুরু হওয়ায় হিলি স্থলবন্দর দিয়ে কয়লা আমদানি বেড়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here