সুন্দরবনের পাশে বিদ্যুৎকেন্দ্র বাতিলের দাবি

0
8

তেল-গ্যাস খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটি বিবৃতি দিয়ে সুন্দরবনের পাশে বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপনের উদ্যোগ বাতিলের দাবি জানিয়েছে।
সোমবার কমিটির আহ্বায়ক প্রকৌশলী শেখ মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ এবং সদস্য সচিব অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ এ বিবৃতি দেন। বিবৃতিতে তারা রামপাল ও ওরিয়নের বিদ্যুৎকেন্দ্র বাতিলের দাবি জানান।
বিবৃতিতে বলা হয়, সরকার এক দিকে বাংলাদেশের একমাত্র বাঘে আবাসস্থল সুন্দরবন ধ্বংস নিশ্চিত করার মত দূরত্বে একাধিক কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎকেন্দ্র করার অনুমতি দিচ্ছে। অন্যদিকে বাঘ আর সুন্দরবন বাঁচানোর গুরুত্বের কথা বলে আন্তর্জাতিক বাঘ সম্মেলন উদ্বোধন করছেন।
বিবৃতিতে বলা হয়, সুন্দরবন রক্ষার নামে সম্মেলনে বিশ্বব্যাংকসহ বহু সংস্থার ব্যয়বহুল নানা প্রকল্প তৈরী হচ্ছে। ক্ষমতাবান গোষ্ঠী যদি সীমাহীন লোভ পূরণে দস্যু-দানবের ভূমিকায় অবতীর্ণ না হয় তাহলে সুন্দরবন নিজেই নিজেকে রক্ষা ও পূন:উৎপাদন করতে সক্ষম। সরকার এই দানবদের প্রতিহত না করে বরং তাদের পৃষ্ঠপোষকতা করছে। অথচ সুন্দরবন ধ্বংস মানেই শুধু বাঘ নিশ্চিহ্ন হওয়া নয়, প্রতিটি প্রাকৃতিক দুর্যোগে লক্ষ লক্ষ মানুষকেও অবধারিত মৃত্যুর মুখে ঠেলে দেয়া। এই তৎপরতার বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক মহলেরও সোচ্চার হওয়া উচিত। কেননা সুন্দরবন শুধু বাংলাদেশের নয় বিশ্বেরও অমূল্য সম্পদ, যা পৃথিবীতে একটিই আছে। এটি ধ্বংস হলে আর একটি সুন্দরবন তৈরীর ক্ষমতা মানুষের নেই।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here