রামপাল প্রকল্প এগিয়ে নিতে সংসদীয় কমিটির তাগিদ

0
3

জাতীয় সংসদের বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটি কয়লাভিত্তিক রামপাল তাপ বিদ্যুৎকেন্দ্রর কাজ দ্রুত এগিয়ে নেওয়ার তাগিদ দিয়েছে।
মঙ্গলবার জাতীয় সংসদ ভবনে দশম জাতীয় সংসদের স্থায়ী কমিটির ১৬তম সভায় এ তাগিদ দেয়া হয়। কমিটির সভাপতি মো. তাজুল ইসলাম সভায় সভাপতিত্ব করেন।

বৈঠক শেষে  তাজুল ইসলাম সাংবাদিকদের বলেন, ‘রামপাল ২০১৯ সালে উৎপাদনে আসার কথা। সেই পথেই আমরা এগোচ্ছি, যেভাবে দরপত্র দেওয়া হয়েছে।
তিনি বলেন, রামপালের পাশে অর্থনৈতিক এলাকা গড়ে তোলা হবে, এটি এ ক্ষেত্রে অবদান রাখবে। যে প্যারামিটার দেওয়া আছে সে হিসেবেই এগুচ্ছে। যেহেতু দরপত্রও হয়ে গেছে আর আর্থিক বিষয়টিও নিশ্চিত; আশা করি, নির্ধারিত সময়েই তা শেষ হবে।
নিদিষ্ট শিল্প ও অর্থনৈতিক এলাকায় জ্বালানি নিশ্চিত করা হবে বলে তিনি জানান।
এ ছাড়া বৈঠকে পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি অব বাংলাদেশের (পিজিসিবি) প্রকল্পগুলো বাস্তবায়ন এবং বিদ্যুৎ খাতে প্রিপেইড মিটার স্থাপনের অগ্রগতি সম্পর্কে আলোচনা হয়। কমিটি নতুন প্রকল্প নেয়ার মাধ্যমে বিদ্যুৎ লাইন বাড়ানোর সুপারিশ করে। বৈঠকে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে গৃহীত প্রকল্পসমূহ বাস্তবায়ন এবং বাংলাদেশ বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড (পিডিবি) ও বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিকে (আরইবি) ইজিবাইকের (টমটম) চার্জ দিতে  বিদ্যুৎ সংযোগের অবৈধ পন্থা রোধ করার সুপারিশ করা হয়।

কমিটি নতুন প্রকল্প গ্রহণের মাধ্যমে প্রিপেইড মিটার স্থাপনের দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করে। বিদ্যুৎবিষয়ক রাষ্ট্রীয় সকল প্রোগ্রামে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্যদের অন্তর্ভুক্ত করার জন্য মন্ত্রণালয়কে ব্যবস্থা গ্রহণের সুপারিশ করে। বৈঠকে মহাসড়কের পাশের সরকারি জায়গার মধ্য দিয়ে বিদ্যুৎ লাইন নেয়ার জন্যও সুপারিশ করা হয়।

কমিটির সদস্য বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, মো. আতিউর রহমান আতিক, মো. আবু জাহির, এম আবদুল লতিফ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম এবং এ বি এম রুহুল আমিন হাওলাদার আলোচনায় অংশ নেন। এ ছাড়া বৈঠকে সংশ্লিষ্ঠ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here