বাংলাদেশ মালয়েশিয়া যৌথ বিনিয়োগে বিদ্যুৎ কেন্দ্র করতে চুক্তি

0
2

বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়া  যৌথভাবে কক্সবাজারের মহেশখালীতে কয়লা বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপন করতে যাচ্ছে। এর উৎপাদন ক্ষমতা হবে এক হাজার ৩২০ মেগাওয়াট।

বুধবার এ বিষয়ে মালয়েশিয়ার পুত্রজায়ায় বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড (পিডিবি) মালয়েশিয়ার তেনেগা নাসিনল বারহেড ও পাওয়ারটেক এনার্জির সাথে চুক্তি করেছে।

চুক্তি সই অনুষ্ঠানে বাংলাদেশের বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ ও বিদ্যুৎ সচিব মনোয়ার ইসলাম উপস্থিত ছিলেন।

এই চুক্তি অনুযায়ি এখন মালেশিয়া বাংলাদেশ একটি যৌথ কোম্পানি গঠন করবে। সেই কোম্পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের কারিগরী উপদেষ্টা নিয়োগ, আন্তর্জাতিক দরপত্র আহ্বানের মাধ্যমে ঠিকাদার নিয়োগ, ভুমি ও অবকাঠামো উন্নয়ন, প্রকল্পের জ্বালানি হিসেবে কয়লা কেনা, যন্ত্র পরিবহন ও সরবরাহ,  আন্তর্জাতিক ঋণদানকারী সংস্থা বা ব্যাংক থেকে ঋণ সংগ্রহ করবে।

এই বিদ্যুৎ কেন্দ্রে প্রায় দুই দশমিক পাঁচ বিলিয়ন ডলার খরচ ধরা হয়েছে।

চুক্তিতে পিডিবির চেয়ারম্যান শামসুল হাসান মিয়া এবং মালয়েশিয়ার তেনেগা নাসিনল বারহেডের প্রেসিডেন্ট দাতুক সেরি ইর আজমান মোহম্মদ ও পাওয়ারটেক এনার্জির পরিচালক দাতু মার্ক উইলিয়াম লিং লী মেং সই করেন।

চুক্তি সই অনুষ্ঠানে নসরুল হামিদ বলেন, বিদ্যুৎ উৎপাদন ও ব্যবস্থাপনায় মালয়েশিয়ার অভিজ্ঞতা কাজে লাগানো হবে। উন্নত প্রযুক্তির সহায়তা নিয়ে বিদ্যুৎ সাশ্রয় করা হবে।

বাংলাদেশে বিভিন্ন বিদ্যুৎকেন্দ্রে মোট ৯২০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদনে মালয়েশিয়ান প্রতিষ্ঠান পাওয়ারটেক কাজ করছে।

গত ৩০ মে এই চুক্তির খসড়া অনুমোদন করে মন্ত্রিসভা কমিটি। এর আগে ২০১৪ সালের ২২ সেপ্টেম্বর বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপন বিষয়ে বাংলাদেশ ও মালয়েশিয়ার মধ্যে সমঝোতা চুক্তি হয়।

বর্তমানে বাংলাদেশ ভারত এবং চীনের সঙ্গে যৌথ কোম্পানি গঠনের মাধ্যমে রামপালে এবং পায়রায় কয়লা বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপনের কাজ শুরু করেছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here