পলিথিন নিষিদ্ধ আইন কার্যকরের দাবি

0
7

পলিথিন নিষিদ্ধের আইন কার্যকর করার দাবি জানিয়েছে পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন(পবা) ও এনভায়রনমেন্ট অ্যান্ড সোসাল ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশন(এসডো)।

বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে আয়োজিত এক মানববন্ধনে সংগঠনের বক্তারা এ দাবি জানান।

মানব বন্ধনে বক্তারা বলেন, পলিথিন অপচনশীল বলে দীর্ঘদিন প্রকৃতিতে অবিকৃত অবস্থায় থেকে মাটিতে সূর্যলোক, পানি এবং অন্যান উপাদান প্রবেশে বাধা সৃষ্টি করে। পাশাপাশি পলিথিন থেকে সৃষ্ট ব্যাকটেরিয়া ত্বকে বিভিন্ন ধরনের রোগের জন্ম দেয় এবং ডায়রিয়া আমাশয় ছড়াতে পারে। পলিথিনের ক্ষতিকর দিক অনেক আর যে কারণে পলিথিন নিষিদ্ধের আইন কার্যকর করা জরুরি।

তারা বলেন, একটি পলিথিন ব্যাগ প্রকৃতিতে মিশে যেতে সময় লাগে কয়েক’শ বছর। এই পলিথিন দ্বারা ড্রেন, নালা, খাল ডোবা, ইত্যাদি ভরাট হয়ে যাওয়ায় পানির প্রবাহ বাধাগ্রস্ত হয় এবং সামান্য বৃষ্টিতেই জলাবদ্ধতার প্রকোপ বাড়িয়ে দেয়।

পলিথিন সম্পর্কিত আইন উল্লেখ করে বক্তরা বলেন, বাংলাদেশ পরিবেশ আইন ১৯৯৫ (২০০২ সনের ৯ নং আইন দ্বারা সংশোধিত) এর ৬ক ধারার প্রদত্ত ক্ষমতা বলে সরকার সকল বা যে কোন প্রকার পলিথিন শপিং ব্যাগ বা পলিইথাইলিন বা পলিপ্রপাইলিন তৈরি অন্য কোন সামগ্রী পরিবেশের জন্য ক্ষতিকর হলে, এরূপ সামগ্রী উপাদান, আমদানি, বাজারজাতকরণ, বিক্রয়, বিক্রয়ের জন্য প্রদর্শন, মজুদ, বিতরণ, বাণিজ্যিক উদ্দেশ্য ব্যবহার সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ করেছে। কিন্তু আইন করার কয়েক বছর পর থেকে পুনরায় পলিথিন ব্যবহার শুরু হয়।

বিদ্যমান আইন কঠোরভাবে প্রয়োগ করা এবং অপরাধীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি প্রদানসহ পলিথিন শপিং ব্যাগ তৈরির কাঁচামালের ওপর উচ্চহারে করারোপ করার দাবিও জানান বক্তারা।

মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন পরিবেশ বাঁচাও আন্দোলন (পবা)’র নির্বাহী সাধারণ সম্পাদক মো. আব্দুস সোবাহান, এনভায়রনমেন্ট অ্যান্ড সোসাল ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশন(এসডো)’র গবেষণা সহকারী মো. কাউছার উদ্দিনসহ সংগঠন দুটির নেতারা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here