জ্বালানি সচিব আবুবকর সিদ্দিক আর নেই

0
1

জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগের সচিব আবুবকর সিদ্দিক মারা গেছেন। সোমবার ভোরে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। তার বয়স হয়েছিল ৫৮ বছর। বেশ কিছুদিন তিনি ক্যান্সারে ভুগছিলেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, দুই সন্তানসহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন।

আবুবকর সিদ্দিক এর মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতি এডভোকেট আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও স্পীকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী শোক প্রকাশ করেছেন। তার মুত্যুতে সোমবার মন্ত্রিসভার বৈঠকে শোক প্রস্তাব আনা হয়।

১৯৫৮ সালের ৩ মার্চ  শরিয়তপুর জেলার নড়িয়া উপজেলার কেদারপুর গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত মুসলিম পরিবারে তিনি জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৮২ বিশেষ ব্যাচে বাংলাদেশ সিভিল সার্ভিস (প্রশাসন) ক্যাডারে যোগ দেন। ২০১৪ সালের ২০ জুলাই থেকে জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগের সচিবের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। এরআগে টিএ-টি মšúনালয়ের সচিব, বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম করপোরেশনের চেয়ারম্যানসহ বিভিন্ন দায়িত্ব পালন করেছেন। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ব্যবস্থাপনা বিভাগে স্নাতক ও স্নাতকোত্তর করেছেন। তিনি ১৯৮২ বিশেষ ব্যাচের প্রতিভাবান কর্মকর্তা ছিলেন।

রাষ্ট্রপতি তার শোক বার্তায় মরহুমের শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান। প্রধানমন্ত্রী তার শোক বার্তায় বলেন, আবু বকর সিদ্দিক খুব আন্তরিকতা ও দক্ষতার সাথে দায়িত্ব পালন করেছেন। তার মৃত্যুতে দেশ একজন অভিজ্ঞ ও প্রতিভাবান উর্ধ্বতন কর্মকর্তা হারালো। তিনি বলেন, সরকারের উন্নয়ন কর্মসূচিকে এগিয়ে নিতে জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ খাতে তার অবদানের কথা জাতি সবসময় স্মরণ করবে।

এদিকে, জোহরের নামাজের পর সচিবালয় মসজিদে মরহুমের নামাজে জানাজা শেষে প্রধানমন্ত্রী জ্বালানি সচিবের স্ত্রী ও দুই মেয়েসহ পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে কথা বলেন এবং তাদের সান্তনা দেন।

এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেষবারের মত আবু বকর সিদ্দিকের লাশ দেখেন এবং তার স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানান। স্পীকার তার শোক বার্তায় বলেন, আবুবকর সিদ্দিক মহৎ হৃদয়ের অধিকারি একজন প্রতিভাবান সরকারি কর্মকর্তা ছিলেন।

তার মৃত্যুতে বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ শোক প্রকাশ করে এক বার্তায় বলেন, তাঁর মৃত্যুতে দেশ একজন মিষ্টভাষী, সৎ ও দক্ষ কর্মকর্তাকে হারালো। তিনি তাঁর বিদেহী আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন এবং শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

এছাড়া তার মৃত্যুতে এলজিআরডি ও সমবায় মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন, শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, এলজিআরডি ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী মো. মসিউর রহমান রাঙ্গা, স্থানীয় সরকার বিভাগের সচিব আবদুল মালেক, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগের সচিব এম এ কাদের সরকার শোক প্রকাশ করেছেন।